BetterButter অ্যাপ

রেসিপি, খাবার কমিউনিটি এবং রান্নাঘরের জিনিসপত্র

(8,719)
ডাউনলোড করুন

আপনার রেসিপি আপলোড করার জন্য অ্যাপ ডাউনলোড করুন

হোম / রেসিপি / কিমা স্টাফড্ বান্

Photo of Keema stuffed bun by Piyali Sengupta at BetterButter
0
7
0(0)
0

কিমা স্টাফড্ বান্

Mar-20-2018
Piyali Sengupta
45 মিনিট
প্রস্তুতি সময়
30 মিনিট
রান্নার সময়
4 জন
পরিবেশন সংখ্যা
নির্দেশাবলী দেখুন পরের জন্য সংরক্ষিত

কিমা স্টাফড্ বান্ রেসিপির সম্বন্ধে

এটি একটি মুখরোচক অথচ পেট ভরা খাবার, যেটা দিনের যে কোনও সময়ে খাওয়া যায়। বাচ্চাদের তো ভালো লাগবেই। আমি নিশ্চিত ,বড়দেরও ভালো লাগবে। কিমার পুর ভরা বান রুটি।

রেসিপি ট্যাগ

  • नॉन व्हेज
  • मध्यम
  • किड्स रेसिपीज
  • ग्रीलिंग
  • बेकिंग

উপকরণ পরিবেশন সংখ্যা: 4

  1. কিমার পুরের জন্য :
  2. চিকেন কিমা 250 গ্রাম
  3. একটি বড় পেঁয়াজ বাটা
  4. একটা ছোট পেঁয়াজ কুচি
  5. আধা চা বাগান আদা বাটা
  6. আধা চা চামচ রসুন বাটা
  7. এক চা চামচ ভিনিগার
  8. হলুদ গুঁড়ো সিকি চা চামচ
  9. কাঁচালঙ্কা কুচি সামান্য
  10. সর্ষের তেল দুই টেবিল চামচ
  11. পরিমাণ মতো নুন
  12. চিনি আধা চা বাগান।
  13. গরম মশলা গুঁড়ো সিকি চা বাগান
  14. মেয়নিজ দুই চা চামচ
  15. বানের জন্য উপকরণ :
  16. ময়দা দেড় কাপ
  17. অ্যাকটিভ ইস্ট দেড় চা চামচ
  18. চিনি দেড় চা বাগান
  19. দুধ তিনের চার কাপ (3/4 th cup )
  20. মাখন দুই চা চামচ
  21. নুন এক চা চামচ
  22. সাদা তেল এক চা চামচ।
  23. ব্রাশ করার জন্য এক চামচ দুধ

নির্দেশাবলী

  1. কিমাটা ভালো করে ধুয়ে , জল ঝরিয়ে তাতে পেঁয়াজ বাটা, আদা বাটা, রসন বাটা , ভিনিগার , নুন , হলুদ মেখে মিনিট দশ রেখে দিতে হবে।
  2. একটা কড়াই এ সর্ষে তেল দিয়ে তাতে পেঁয়াজ কুচি দিয়ে ভাজতে হবে হালকা রং ধরা অব্দি।
  3. এবার তাতে মেখে রাখা কিমাটা দিয়ে কষতে হবে যতক্ষণ না ভালো ভাবে ভাজা হয়।
  4. চিনি ও গরম মশলা দিয়ে নেড়ে মিশিয়ে আঁচ থেকে নামিয়ে ঠাণ্ডা হলে দু চামচ মেয়নিজ মেখে রেখে দিতে হবে।
  5. বান বানাবার জন্য : প্রথমে দুধটাকে ঈষদুষ্ণ গরম করে সেটাতে প্রথমে চিনি ও পরে ইস্ট দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে পাত্রটাকে একটা গরম জায়গায় ঢাকা দিয়ে পনেবো মিনিট না নাড়িয়ে রেখে দিতে হবে।
  6. দুধটার উপর ফেনা ফেনা উঠলে বোঝা যাবে সেটা তৈরি।
  7. এবার একটা পাত্রে ময়দা , নুন ও মাখনটা নিয়ে তাতে আস্তে আস্তে এই দুধ দিয়ে মাখতে হবে। বেশ নরম ও চিটচিটে হতে হবে।
  8. এবার এই মিশ্রণটা একটা পরিস্কার প্ল্যাটফর্ম এ নামিয়ে হাতের তালুর নিচভাগ দিয়ে খুব করৈ টেনে টেনে মাখতে হবে।
  9. প্রায় পনেরো থেকে কুড়ি মিনিট মখার পর যখন ময়দাটা আর চিটচিটে থাকবে না, বরং চকচকে দেখতে হবে, তখন সেটাকে একটা বড় পাত্রে রেখে এক চামচ তেল মেখে একটা ক্লিং ফিল্ম দিয়ে পাত্রটা ঢেকে একটা নরম জায়গায় রেখে দিতে হবে এক ঘন্টার জন্য।
  10. এক ঘণ্টা পর ময়দাটা ফুলে দুগুন হয়ে যাবে।
  11. এবার আবার ঐ দলাটাকে প্লাটফর্ম এ নামিয়ে হাত দিয়ে পনেরো মিনিট ঠাসতে হবে।
  12. পনেরো মিনিট ঠাসা হলে ময়দাটা একটা রোল বানিয়ে আটটা সমান ভাবে ভাগ করতে হবে।
  13. এবার এক এক ভাগ গোল্লা বানিয়ে তাতে পুর ভরতে হবে যেমন করে কচুরির পুর ভরে।
  14. পুর ভরা হয়ে গেলে গোল গোল করে রাখতে হবে।
  15. এবার একটা বেকিং ট্রে র উপর একটা ফয়েল পেপার দিয়ে তাতে একটু তেল মাখিয়ে গোলাগুলো একটু ফাঁক ফাঁক করে সাজাতে হবে।
  16. আবার ঐ ট্রে টা এক ঘণ্টা একটা ভেজা কাপড় চাপা দিয়ে গরম জায়গায় রেখে দিতে হবে।
  17. এক ঘণ্টা পর গোলা গুলোর উপর একটু দুধ ব্রাশ করৈ একটা আগে থেকে 200°C এ গরম করা আভেনে কুড়ি মিনিট ব্রেক করতে হবে।
  18. এরপর টেমপারেচার কমিয়ে 160 ° C এ শুধু গ্রীল মোডে পাঁচ মিনিট গ্রীল করলে উপরে সুন্দর ব্রাউন কালার আসবে।
  19. আভেন থেকে বার করে বানগুলোর উপরে সামান্য মাখন ব্রাশ করে পরিবেশন করতে হবে।

রিভিউ (0)  

আপনি এই রেসিপিটি কীভাবে রেট করবেন? আপনার রিভিউ জমা দেওয়ার আগে দয়া করে একটি রেটিং যোগ করুন।

রিভিউ জমা দিন

একইরকম রেসিপি

A password link has been sent to your mail. Please check your mail.
Close
শেয়ার